Breaking

google news

Wednesday, January 12, 2022

আবারো করোনা বিধি লঙ্ঘন করার অভিযোগ উঠল দিলীপ ঘোষের বিরুদ্ধে


দিলীপ ঘোষ



রামকৃষ্ণ চ্যাটার্জী, আসানসোল : গতকালের পর আজ বুধবার ফের ভোট প্রচারে দিলীপ ঘোষ। আর এদিন আবারো করোনা বিধি লঙ্ঘন করার অভিযোগ উঠল দিলীপ ঘোষের বিরুদ্ধে। এদিন প্রচারের সময় প্রচুর জনসংযোগ তৈরি হয় ভোট প্রচারে।




এদিন আসানসোল পৌর নিগমের ৭৮ নম্বর ওয়ার্ডের নরসিং বাঁধে নির্বাচনী প্রচার করলেন বিজেপির সর্ব ভারতীয় সহ সভাপতি দিলীপ ঘোষ। বুধবার ৭৮ নম্বর ওয়ার্ডের বিজেপি প্রার্থী রাজারাম সিং এর সমর্থনে এই নির্বাচনী প্রচার করা হয়। এদিন স্বামী বিবেকানন্দের মূর্তিতে মাল্যদান করে নির্বাচনী প্রচার শুরু করেছেন তিনি। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, আগামী ২২ শে জানুয়ারি আসানসোল পৌর নিগমের নির্বাচন। আর তাই সমস্ত রাজনৈতিক দলের প্রার্থীরা জোরকদমে তাদের প্রচার চালাচ্ছেন। এদিন আসানসোল পৌর নিগমের ৭৮ নম্বর ওয়ার্ডের নরসিং বাঁধ এলাকায় বাড়ি বাড়ি গিয়ে প্রচার সারলেন বিজেপির সর্ব ভারতীয় সহ সভাপতি দিলীপ ঘোষ। এদিনের নির্বাচনী প্রচারে ঘিরে যাতে কোনো অশান্তি না হয় তারজন্য বিশাল পুলিশ বাহিনী উপস্থিত ছিল। এদিনের প্রচারে মানুষের ভিড় ছিল চোখে পড়ার মতো।




এদিন সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তরে দিলীপ ঘোষ বলেন, আমি গত পরশু দিন থেকে আসানসোল এর ভোট প্রচারে এসেছি। আর সেই দিন থেকেই আমাদের পুলিশ মারফত আটকানোর চেষ্টা চালনো হচ্ছে। আমার করোনা বিধি ও নির্বাচন বিধি মেনে চার পাঁচ জনই প্রচারে বের হচ্ছি। আর রয়েছেন নিরাপত্তা রক্ষী ও সাংবাদিকরা। এই অঞ্চলের লোকসংখ্যা বেশি। আমরা রাস্তায় বেরোলে লোকজন তো আসবেই। কেউ দেখা করতে আসছেন, কেউ ভুল ছুঁড়ছেন। এগুলো তো থাকবেই। আর বিজেপির প্রতি লোকের আগ্রহ রয়েছে। তাই প্রচারে লোকের সংখ্যা বাড়ছে। এতে যদি আচরণ বিধি লঙ্ঘন করা হয় তাহলেতো নির্বাচন করাই উচিত নয়। মানুষজনের সাথে দেখা না করলে, কথা না বললে প্রচার কিভাবে করা হবে। আসলে তৃণমূলের হয়ে কাজ করছে পুলিশ।

No comments:

Post a Comment