Latest Online Bengali News Portal

Click Here

Breaking

Friday, September 09, 2022

কলা চুরির অভিযোগ CPIM এর বিরুদ্ধে, কলা দিয়ে সহযোগিতা তৃণমূলের

কলা চুরির অভিযোগ CPIM এর বিরুদ্ধে

Banana



কয়লা পাচার,গরু পাচার, চাকরি নিয়োগ দুর্নীতি নিয়ে এই মুহূর্তে উত্তাল গোটা রাজ্য রাজনীতি।আর তাতে নাম জড়িয়েছে শাসকদলের একাধিক নেতার। আর সেই নিয়ে আন্দোলন করতে গিয়েই ধরা পড়ে গেল সিপিএমের কলা চুরির ঘটনা।  



বর্ধমানের কার্জন গেট চত্বরে দলের রাজ্য সম্পাদক মহম্মদ সেলিমের নেতৃত্বে আইন অমান্য আন্দোলন করতে এসে কার্জন গেট চত্বরে দুই জন গরিব ফল বিক্রেতার দোকানে কলা,আপেল লুটের অভিযোগে কাঠগড়ায় সিপিএম কর্মী-সমর্থকরা। সিপিএমের আইন অমান্য কর্মসূচি পালনের জন্য কার্জনগেটের সামনে জমায়েত হন সিপিআইএম কর্মী সমর্থকরা। সিপিএম এর আইন অমান্য কর্মসূচি চলাকালীন পুলিশের সাথে সংঘর্ষ বাঁধে সিপিএমের।আর এর-ই মাঝে কার্জনগেটের পাশে থাকা দুই কলা ব্যবসায়ীর দোকানে কার্যত্য লুট চালালো সিপিএম কর্মীরা।ঝুলে থাকা প্রায় ১২-১৪ ছড়া কলা নিয়ে পালালো তারা। ইতিমধ্যে সোশাল মিডিয়ায় সহ গোটা রাজ্যে জুড়ে মিম ছড়িয়েছে "কলা চোর সিপিএম "আর এই ক্ষোতিগ্ৰস্ত কলা বিক্রেতাদের পাশে থাকতে আজ তিন কাঁধি কলা দিলেন খন্ডঘোষ ব্লক তৃণমূল কংগ্রেস কমিটি।




খণ্ডঘোষের তৃণমূল ব্লক সভাপতি তথা জেলা পরিষদ সদস্য অপার্থিব ইসলাম ওরফে ফাগুনের নেতৃত্বে বিশাল ৩ কাঁদি সিঙাপুরী কলা নিয়ে ক্ষতিগ্রস্থ দোকানে হাজির হন তৃণমূল কর্মীরা। এদিন অপার্থিব ইসলাম জানিয়েছেন, তাঁরা দেখেছেন সেদিন কিভাবে সিপিএম সন্ত্রাস চালিয়েছে। এই রাস্তার পাশে দোকানদাররা সামান্য ফল বেচে সংসার চালান। সেদিন তাদেরও রেওয়াত করেনি সিপিএম। স্বাভাবিকভাবেই তাঁদের সেই ক্ষতি পূরণ করতেই এদিন তিনি ৩ টি কাঁদি সিঙাপুরী কলা দিলেন। যাতে কিছুটা হলেও তাঁদের ক্ষতি পুষিয়ে যায়। তিনি জানিয়েছেন, তৃণমূল কংগ্রেস সব সময়ই যে মানুষের পাশে আছেন এটা তারই উদাহরণ। 



অন্যদিকে, এদিন এই কলা পেয়ে খুশী ফল বিক্রেতা সুবল সাহা জানিয়েছেন, যেভাবে সিপিএম সমর্থকরা তাণ্ডব চালিয়েছেন তাতে তাঁরা ভয়ে পেয়ে দোকান ছেড়ে পালিয়ে গেছিলেন। তাঁর দোকান লক্ষ্য করে বড় বড় ইঁট ছোঁড়া হয়। আর তিনি পালিয়ে যেতেই সিপিএম সমর্থকরা তাঁর দোকান থেকে আপেল, ন্যাসপাতি লুঠ করে পালায়। সুবল সাহার দোকানের সামনেই রাস্তার রেলিংয়ে সিঙাপুরী কয়লা টাঙিয়ে বিক্রি করেন ভোলেশ্বর সাউ। এদিন অপার্থিব ইসলাম তাঁকে ২টি কলার কাঁদি দেন। ভোলেশ্বর জানিয়েছেন, তাঁর কাছে নয়নয় করেও প্রায় ১২-১৪ ছড়া কলা লুঠ করে নিয়ে পালায় সিপিএমের সমর্থকরা। তিনি সত্যিই ক্ষতির মুখে পড়েছিলেন। কিন্তু এদিন যেভাবে তাঁকে তৃণমূলের নেতারা কলার কাঁদি দিলেন তিনি স্বপ্নেও কখনও এরকম হয় তা ভাবেননি।

1 comment: