Latest Online Bengali News Portal

Breaking

Saturday, June 25, 2022

wb primary teachers : প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নিয়োগ নিয়ে এবার মুখ খুলুলেন অভিযুক্ত শিক্ষিকা

wb primary teachers job : প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নিয়োগ নিয়ে এবার মুখ খুলুলেন অভিযুক্ত শিক্ষিকা 


kolkata high court and cbi



একের পর এক নতুন নতুন দুর্নীতির অভিযোগে বিদ্ধ রাজ্যের প্রাথমিক শিক্ষক (wb primary teachers) নিয়োগ। যত দিন এগোচ্ছে তত নতুন নতুন দুর্নীতির (wb primary scam) চিত্র সামনে আসছে। ইতিমধ্যে ১ নাম্বার বাড়িয়ে চাকরি হওয়ায় মোট ২৬৯ জনকে বরখাস্ত (terminated teachers) করেছে আদালত। এবার আরও এক চাঞ্চল্যকর অভিযোগ সামনে এসেছে।


অপ্রাপ্তবয়স্ক অবস্থাতেই মিলেছে প্রাথমিক শিক্ষকতার চাকরী (wb primary teachers job), এবার এমনি অভিযোগ সামনে আসায় চাঞ্চল্য তৈরি হয়েছে গোটা রাজ্যজুড়ে। অভিযোগ, মাত্র ১৭ বছর বয়সেই প্রাথমিকে শিক্ষকপদে চাকরি (wb primary teachers job) দেওয়া হয়েছে। চাকরি দিয়েছে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ (wbbpe)। অভিযোগ, যখন চাকরি পেয়েছিলেন, তখন চাকরি প্রাপকের বয়স ছিল মাত্র ১৭ বছর। যেখানে প্রাথমিকে চাকরি পাওয়ার নূন্যতম বয়স ১৮ বছর। সেখানে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে মাত্র ১৭ বছর বয়সে।


তবে যার বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠছে, সেই মালদার বুলবুলচণ্ডী এলাকার শিক্ষিকা সুইটি দাস (wb primary teachers job)এবার মুখ খুললেন। জানালেন, তিনি প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের নিয়ম মেনেই নির্দিষ্ট বয়সে পরীক্ষা দেন। একটি সংবাদ মাধ্যমে নিজের শংসাপত্রও দেখান তিনি।


তিনি জানিয়েছেন চলতি বছরের ২৮ মার্চ চাকরি পেয়েছেন সুইটি। নিজের বিরুদ্ধে ওঠা যাবতীয় অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন তিনি।


প্রসঙ্গত প্রাথমিকে শিক্ষক (wb primary teachers job) নিয়োগের জন্য ২০১৪ সালে বিজ্ঞপ্তি জারি করেছিল প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ। এরপর ২০১৫ সালে সেই বিজ্ঞপ্তি আবার জারি হয়। তাতে বলা হয়, ২০১৫ সালের ২৫ মে-র আগে যাঁরা উচ্চ মাধ্যমিক পাশ করেছেন, তাঁরা পরীক্ষায় বসার যোগ্য।


শিক্ষিকা সুইটি দাস বলেন, “আমি ২০১৪ সালে উচ্চ মাধ্যমিক পাশ করেছি। আর আমার জন্ম ১৯৯৬ সালের সাত ডিসেম্বর। ফলে আমি নির্দিষ্ট বয়সের থেকে কম বয়সে পরীক্ষা দিইনি। আমার যদি আঠারো বছর না হত, আমি অ্যাডমিট কার্ড পেতাম না।”


তথ্য সূত্রঃ TV9

No comments:

Post a Comment